মঙ্গলবার ১ শ্রাবণ, ১৪২৬ ১৬ জুলাই, ২০১৯ মঙ্গলবার

ক্ষমা চাইলেন রুবেল

বিষেরবাঁশী ডেস্ক: শক্তিশালী ভারতের সামনে ১৬৭ রানের টার্গেট মোটেও স্বস্তির ছিল না। তবে টাইগারদের দুর্দান্ত বোলিংয়ে এই ১৬৭ রানের ইনিংসটিই হয়ে উঠে বাচা-মরার লড়াই। শুরুর দিকে এমন বোলিং করেও শেষ হবে পরাজয়ের গ্লানি নিয়ে সেটা কে জানতো। পুরো ম্যাচটা মুহূর্তের মধ্যে বদলে দেয় রুবেলের ১৯তম ওভার। তাইতো সবার চোখে রুবেল হয়ে উঠলেন ভিলেন। তবে রুবেল নিজেই এই দায় স্বীকার করে ক্ষমা চাইলেন দেশের ক্রিকেট ভক্তদের কাছে।

বোলিংয়ের শুরু থেকেই বেশ দারুণ করেছেন রুবেল। প্রথম তিন ওভারে সুরেশ রায়নার গুরুত্বপূর্ণ উইকেটটি নেয়ার পাশাপাশি দেন মাত্র ১৩ রান। কিন্ত ১৯তম ওভারই যত ঝামেলার কারণ। ওই সময় রুবেল যখন বল হাতে নেন তখন ভারতের দরকার ছিল ১২ বলে ৩৪ রান। রুবেলের সেই ওভারটিতে দীনেশ কার্তিক ২২ রান নিয়ে ম্যাচ নিজেদের দখলে নিয়ে নেন। আর শেষের দিকে সৌম্যর ওভারে ছক্কা মেরে শিরোপা তাদের করেন।

ম্যাচ শেষে সবার চোখে আসামি রুবেল। ডেথ ওভারে সব সময় দুর্দান্ত এই পেসার। তার ডেথ ওভারের কল্যাণে ২০১৫ ওয়ানডে বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডকে হারিয়ে কোয়ার্টার ফাইনালে ওঠে বাংলাদেশ। কিন্তু আজ সেই রুবেলেই ডুবল বাংলাদেশ। নিজের এমন বোলিংয়ের জন্য অনুতপ্ত রুবেল নিজেও। তার একটি ওভারেই পুরো জাতির স্বপ্নভঙ্গ হলো।

তাইতো দেশবাসীর কাছে ক্ষমা চেয়ে রুবেল সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে লেখেন—ম্যাচ শেষ হওয়ার পর থেকেই খুব খারাপ লাগছে। সত্যি বলতে আমি কখনোই ভাবিনি আমার কারণে বাংলাদেশ দল জয়ের এত কাছে এসেও ম্যাচ থেকে এভাবে ছিটকে যাবে। সবার কাছে আমি ক্ষমাপ্রার্থী। আমাকে ক্ষমা করে দিয়েন সবাই।

বিষেরবাঁশী ডেস্ক/সংবাদদাতা/হৃদয়

Categories: খেলাধূলা

Leave A Reply

Your email address will not be published.