শুক্রবার ৬ আশ্বিন, ১৪২৫ ২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ শুক্রবার

বাংলাদেশে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের ওপর হামলার প্রতিবাদ জানাল বিশ্ব হিন্দু পরিষদ

জামায়াত ইসলামী ও হেফাজতে ইসলামকে নিষিদ্ধের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল করেছে বিশ্ব হিন্দু পরিষদের (ভিএইচপি) নেতাকর্মীরা। সেই সঙ্গে বাংলাদেশে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের ওপর হামলার প্রতিবাদও জানায় তারা।

আজ শনিবার সকালে ভারতের পশ্চিমঙ্গের কলকাতায় অবস্থিত বাংলাদেশ উপদূতাবাসের পাশে বেকবাগান মোড়ে বিক্ষোভ করেন সংগঠটির শতাধিক নেতাকর্মী।

হিন্দু পরিষদের নেতাকর্মীরা প্রথমে কলকাতার বিড়লা তারামণ্ডলের কাছে জড়ো হন। এরপর সেখান থেকে তাঁরা দলীয় পতাকা, ফেস্টুন ও ব্যানার নিয়ে বাংলাদেশ উপদূতাবাসের দিকে যান। তবে মিছিলটি বেকবাগান মোড়ে যেতেই পুলিশ তাঁদের বাধা দেয়। মিছিলে ভিএইচপি ছাড়াও বজরং দল, বিজেপি ও হিন্দু বৌদ্ধ মন্দির কমিটির নেতাকর্মীরা অংশ নেন। সেখানে বাংলাদেশের জামায়াতে ইসলামী ও হেফাজতে ইসলামের নিষিদ্ধের দাবি তোলেন নেতাকর্মীরা।

মিছিলে অংশ নিয়ে বজরং দলের নেতা অভিজিৎ মজুমদার বলেন, ‘বাংলাদেশের মাটিতে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের ওপর দিনের পর দিন অত্যাচার করছে মুসলিম মৌলবাদীরা। যার বিরুদ্ধে আমাদের এই প্রতিবাদ। বাংলাদেশে এই অত্যাচারের ফলে আজ বহু সংখ্যালঘু সেখানে খুন হচ্ছেন, আবার অনেকে ভারতে পালিয়ে আসতে বাধ্য হচ্ছেন। শেখ হাসিনার সরকার তাঁদের সুরক্ষা দিতে ব্যর্থ হচ্ছে।’ সংখ্যালঘুদের ওপর অত্যাচার বন্ধ না হলে কঠোর আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তিনি।

বিশ্ব হিন্দু পরিষদের পক্ষ থেকে বলা হয়, বাংলাদেশে ক্রমাগত সংখ্যালঘুদের ওপর অত্যাচার চালানো হচ্ছে। সেখানে মন্দির ভাঙা হচ্ছে, নারীদের ওপর নির্যাতন চলছে, হিন্দুদের জোর করে ধর্মান্তরিত করা হচ্ছে। বাংলাদেশে সংখ্যালঘুদের ওপর অবিলম্বে এ অত্যাচার বন্ধ করতে হবে।

Categories: প্রবাস

Leave A Reply

Your email address will not be published.