বুধবার ১১ আশ্বিন, ১৪২৫ ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ বুধবার

প্রতিদিন রাতে বাথরুমে গিয়ে দেখতাম…

বিষেরবাঁশী ডেস্ক: ”বেশ মজাতেই কাজটা করেছি। আর একটা-দুিটি এপিসোডও তো নয়, অনেকগুলো এপিসোড রয়েছে এই শো’তে। সেট’ও অনেকগুলো। বেয়ার গ্রিলসের ‘ম্যান ভার্সেস ওয়াইল্ড’ বলে কথা। তবে আমি আমার মতো করে অ্যাডভেঞ্চারে সামিল হয়েছি।”

আগামীকাল শুক্রবার থেকে ডিসকভারির নতুন চ্যানেল জিৎ-এ শুরু হচ্ছে বলিউড অভিনেত্রী সানি লিওনের নতুন শো ‘ম্যান ভার্সেস ওয়াইল্ড উইথ সানি লিওন’। এই প্রসঙ্গে মুম্বাইয়ে ভারতীয় গণমাধ্যম এবেলা’কে একটা দীর্ঘ সাক্ষাৎকার দিয়েছেন সাবেক এই পর্নস্টার। এদিন সাংবাদিকের প্রথমে করা এক প্রশ্নের জবাবে তিনি উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।

এরপর সানিকে প্রশ্ন করা হয়, ‘শো’ না হয় হল, নিজের জীবনে কতটা অ্যাডভেঞ্চারাস আপনি? জবাবে একটু ভেবে নায়িকা বলেন, ”আরে, আমি বিমান থেকে ঝাঁপ দিয়েছি! আর কী চাই! তবে সেবারও মজাই হয়েছিল। এ বছর জিম করবেটে শ্যুটিং করেছি একটা শো’য়ের। সেটাও কিন্তু কম রোমাঞ্চকর ছিল না! প্রতিদিন যুদ্ধ! কখনও এই পোকা, কখনও সেই পোকার সঙ্গে! ব্যাটল উইথ বাগ্স! অ্যায়সে স্মল কিড়ে। (দুই আঙুলে আকারটা বুঝিয়ে দিয়ে) যতটা ভাবছেন, ততটাও ছোট নয়! বেশ বড়! এরপরও আছে…!

আরও!
(হেসে) হ্যাঁ, আছে তো! প্রায় প্রত্যেকদিন রাতে বাথরুমে গিয়ে দেখতাম, খান দু’এক টিকটিকি ঘোরাফেরা করছে। চেঁচিয়ে ফিরে আসতাম। তারপর লোকজন সেগুলো তাড়াতে গিয়ে দেখত, পুরো বেপাত্তা (জোরে হাসি)!

জঙ্গলে সারভাইভ করাটা বড় চ্যালেঞ্জ…? এমন প্রশ্নের জবাবে সানি বলেন, তা তো বটেই! আমাদের তো ছোট থেকে সারভাইভ্যাল স্কিল শিখিয়ে দেওয়া হয় না। কাজেই অজানা জায়গায় গিয়ে সারভাইভ করা আমাদের পক্ষে মুশকিল হয়। তখন আমাদের ট্রায়াল অ্যান্ড এররের মধ্যে দিয়ে যেতে হয়। কোনটা ঠিক, কোনটা ভুল আমরা জানি না। একটা সামান্য ভুলের জন্য মৃত্যুও হতে পারে।

বিষেরবাঁশী ডেস্ক / সংবাদদাতা / হীরা

Categories: বিনোদন

Leave A Reply

Your email address will not be published.