বুধবার ১১ মাঘ, ১৪২৪ ২৪ জানুয়ারি, ২০১৮ বুধবার

আপন জুয়েলার্সের মালিকদের জামিন স্থগিতাদেশ বর্ধিত

বিষেরবাঁশী ডেস্ক: আপন জুয়েলার্সের মালিক দিলদার আহমেদ সেলিম ও তার ২ ভাই গুলজার আহমেদ, আজাদ আহমেদকে মানি লন্ডারিং আইনে করা পৃথক ৩ মামলায় হাইকোর্টের দেওয়া জামিনের স্থাগিতাদেশ আগামী ৮ জানুয়ারি পর্যন্ত বর্ধিত করেছে আপিল বিভাগ।

ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি মো. আবদুল ওয়াহহাব মিঞার নেতৃত্বাধীন ৫ বিচারপতির আপিল বেঞ্চ মঙ্গলবার এ আদেশ দেন। আদালতে আপন জুয়েলার্সের মালিকদের পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার ফজলে নূর তাপস। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম। এর আগে ২ দফায় জামিন স্থগিত করা হয়।

গত ১৪ ডিসেম্বর আপন জুয়েলার্সের মালিক দিলদার আহমেদ সেলিম এবং তার ২ ভাই গুলজার আহমেদ ও আজাদ আহমেদকে একটি করে মামলায় জামিন দেন হাইকোর্ট। বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি সহিদুল করিমের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

গত ২২ নভেম্বর ৩ ভাইয়ের বিরুদ্ধে রাজধানীর গুলশান, ধানমন্ডি, উত্তরা ও রমনা থানায় মানি লন্ডারিং আইনে করা পৃথক ৫টি মামলায় কেন জামিন দেওয়া হবে না তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছিলেন।

রেইনট্রি হোটেলে গত ২৮ মার্চ বিশ্ববিদ্যালয়ের ২ ছাত্রী ধর্ষণের শিকারের অভিযোগে ৬ মে বনানী থানায় মামলা হয়। পরে গত ৪ জুন শুল্ক বিভাগ আপন জুয়েলার্সের ডিএনসিসি মার্কেট, উত্তরা, মৌচাক, সীমান্ত স্কয়ার ও সুবাস্তু ইনম শাখা থেকে প্রায় ১৫ মণ সোনা ও ৪২৭ গ্রাম ডায়মন্ড জব্দ করার পর তা রাষ্ট্রীয় অনুকূলে বাংলাদেশ ব্যাংকে জমা রাখা হয়।

এরপর দিলদার আহমেদ সেলিম এবং তার ২ ভাই গুলজার আহমেদ ও আজাদ আহমেদের বিরুদ্ধে কর ফাঁকি ও মানি লন্ডারিং এর অভিযোগ পৃথক ৫টি মামলা দায়ের করে শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তর।

বিষেরবাঁশী ডেস্ক/সংবাদদাতা/হৃদয়

Categories: আইন-আদালত,জাতীয়

Leave A Reply

Your email address will not be published.