মঙ্গলবার ৯ অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ ২৪ নভেম্বর, ২০২০ মঙ্গলবার

জিউস পুকুরের মালিকানায় আমার কোনো সম্পর্ক নেই:আইভী

অনলাইন ডেস্ক:- দেওভোগের ঐতিহ্যবাহী জিউস পুকুরকে ইস্যু করে মানববন্ধন নোংরা রাজনৈতিক খেলা বলে মন্তব্য করেছেন নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভীর।তিনি বলেন, জিউস পুকুরের মালিকানার সাথে তার কোনো সম্পর্ক নেই।

আগামী সিটি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রের একটি অংশ এই মানববন্ধন। তার বিরুদ্ধে একটি মহল নোংরা রাজনীতিতে মেতেছে।বুধবার (১১ নভেম্বর) দুপুরে মেয়র আইভী ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে জিউস পুকুর দখলের অভিযোগ তুলে মানববন্ধন করে হিন্দু নেতারা।

সন্ধ্যায় এই মানববন্ধনের বিষয়ে কথা বলতে মেয়রের সাথে যোগাযোগ করা হলে প্রতিক্রিয়ায় এমন মন্তব্য করেন তিনি। মেয়র আইভী বলেন, এই পুকুরের সাথে আমার কোনো সংশ্লিষ্টতা নেই। এই পুকুরের মালিকানার সাথে আমার কোনো সম্পর্ক নাই। পুকুর কোনো ইস্যু না। এটা একটা চক্রান্ত। সিটি নির্বাচনকে সামনে রেখে ষড়যন্ত্র শুরু হলো। বক্তারাই কিন্তু নিজেই আমাকে নমিনেশন না দেওয়ার অনুরোধ করেছে। সুতরাং বিষয়টা কিন্তু ক্লিয়ার। এটা নোংরা রাজনৈতিক খেলা।

মেয়র আরও বলেন, কে বা কারা সুবিধা নেওয়ার জন্য আমার বিরুদ্ধে সাম্প্রদায়িক শক্তিকে উসকে দিতে চাচ্ছে। ৩৬ বছর আগেও আমার বাবার সাথে তারা এই ধরনের খেলায় মেতেছিল। সেই লোকগুলোই আবারও তাদের পুরোনো খেলায় মেতেছে। মিথ্যা অভিযোগ তুলে তো আর সত্যকে আড়াল করা যায় না।জিউস পুকুরের মালিকানার বিষয়ে ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী বলেন, পুকুরের সম্পত্তি ব্যক্তি মালিকানাধীন। আপনারা খোঁজ নিয়েও দেখতে পারেন। এটা মাহতাবউদ্দিন আহমেদ এবং জমির আহমেদের ক্রয়কৃত সম্পত্তি। তারা হতে পারেন আমার আত্মীয় কিন্তু এই সম্পত্তি নিয়ে আমার সাথে কোনো সম্পর্ক নেই। ব্যক্তি আইভীর সাথে এর কোনো সম্পৃক্ততা নেই।

দুপুরে নারায়ণগঞ্জ প্রেস ক্লাবের সামনে জেলা ও মহানগর পূজা উদযাপন পরিষদ ও হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের যৌথ উদ্যোগে আয়োজিত এক মানববন্ধনে মেয়র আইভী ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে জিউস পুকুরের সম্পত্তি দখলের অভিযোগ তোলা হয়। প্রধানমন্ত্রী বরাবর এ সংক্রান্ত একটি স্মারকলিপি জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রদান করা হয়েছে।

বিষেরবাঁশী.কম/ডেস্ক/রূপা

Categories: নারায়ণগঞ্জের খবর

Leave A Reply

Your email address will not be published.