মঙ্গলবার ১১ কার্তিক, ১৪২৭ ২৭ অক্টোবর, ২০২০ মঙ্গলবার

অতিমাত্রায় বাড়বাড়ন্তের জন্য নুরুর পতন!

অনলাইন ডেস্ক:- নুরুল হক নুর বাংলাদেশের একজন ছাত্রনেতা।২০১৮ সালের কোটা সংস্কার আন্দোলনের সময় বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের অন্যতম যুগ্ম-আহ্বায়ক হিসেবে তিনি আলোচনায় আসেন।

নুরুল হক নুর ২০১৯ সালের ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) নির্বাচনে সহ-সভাপতি (ভিপি) নির্বাচিত হন। জুন ২০২০ সালে নুর তরুণদের নেতৃত্বে একটা নতুন রাজনৈতিক দল তৈরি করার ব্যাপারে প্রকাশ্যে ঘোষণা দেন।

বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন, (বিএফইউজে) ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ ডাকসুর সাবেক ভিপি নুরুল হক নুরের ৭১ টেলিভিশন বয়কটের ডাকে উদ্বেগ ও তীব্র নিন্দা জানিয়েছে।

গত ১৪ অক্টোবর বুধবার বিএফইউজের সহসভাপতি সৈয়দ ইশতিয়াক রেজা ও কোষাধ্যক্ষ দীপ আজাদের স্বাক্ষরিত এক যৌথ বিবৃতিতে এ উদ্বেগ ও নিন্দা জানান। নুরের আচরণ ‘গর্হিত অপরাধ’ উল্লেখ করে সংগঠনটি বলছে, ক্ষমা না চাইলে ভিপি নুরুল হক নুরকে গণমাধ্যমের শত্রু হিসেবে চিহ্নিত করা হবে।বিবৃতিতে বলা হয়, ‘কোনো টেলিভিশনে তিনি টকশোর আহ্বান প্রত্যাখ্যান করতে পারেন। কিন্তু সেই টেলিভিশনকে বয়কট করার জন্য সামাজিক মাধ্যমে নুর যে তৎপরতা চালিয়েছেন, তা কোনোভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়। একাত্তর টিভির ফোন নম্বর ফেসবুকে শেয়ার করে তিনি গর্হিত অপরাধ করেছেন। সেই নম্বরে প্রতিক্রিয়াশীল মৌলবাদী চক্র ক্রমাগতভাবে অশ্লীল বক্তব্য ও হুমকি দিয়ে যাচ্ছে। নুর এ ঘটনায় স্বাধীন গণমাধ্যমের জন্য হুমকি হিসেবে চিহ্নিত হচ্ছেন।’

প্রসঙ্গত, ডাকসুর সাবেক ভিপি নুরুল হক নুর বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল একাত্তর টিভি বয়কটের ঘোষণা দেন। সোমবার রাতে এক ফেসবুক স্ট্যাটাসে তিনি এই নিউজ চ্যানেলটির বিরুদ্ধে পক্ষপাতমূলক ও উদ্দেশ্যপ্রণোদিত সংবাদ প্রকাশ করার অভিযোগ তুলেন।স্ট্যাটাসে একাত্তর টিভির ফোন নম্বরও যুক্ত করেন ভিপি নুর, যদিও দুই ঘন্টা পর ফোন নম্বরটি সরিয়ে ফেলে তিনি।

বিষেরবাঁশী.কম/ডেস্ক/রূপা

Categories: জাতীয়,শীর্ষ সংবাদ

Leave A Reply

Your email address will not be published.