শনিবার ২৯ অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ ১৪ ডিসেম্বর, ২০১৯ শনিবার

সৌদিতে আরেক গৃহবধূ নির্যাতিত (ভিডিও ভাইরাল)

অনলাইন ডেস্ক: বর্তমানে সৌদি আরবে প্রবাসী বাঙালি নারীরা যে কতটা কঠিন সময় পাড় করছে তা আমাদের সবারই জানা। কিছুদিন আগে সুমি আক্তার নামে এক নারী এক ভিডিওর মাধ্যমে তার নির্যাতনের বর্ণনা আমাদের জানিয়েছিলেন। এরপর তাকে দেশে ফিরিয়ে আনা হয়।

এর রেশ কাটতে না কাটতেই এবার আরেক নির্যাতিতা নারীর ভিডিও ফাঁস হল। হবিগঞ্জের আজমিরিগঞ্জের হুসনা আক্তার (২৪) নামের এক নারী আর্থিক সচ্ছলতার জন্য ১৭ দিন আগে গৃহকর্মীর কাজ নিয়ে ‘আরব ওয়ার্ল্ড ডিস্ট্রিবিউশন’ নামে একটি এজেন্সির মাধ্যমে সৌদি আরব যান। সেখানে গৃহকর্তার নির্যাতন সহ্য করতে না পেরে প্রথমে তিনি স্বামী শফিউল্লাকে ভিডিও বার্তাটি পাঠান।

সৌদিতে আরেক গৃহবধূ নির্যাতিত (ভিডিও ভাইরাল)

সৌদিতে আরেক গৃহবধূ নির্যাতিত (ভিডিও ভাইরাল)

Posted by bisherbashi.com – HotNews on Sunday, November 24, 2019

হুসনা আক্তার তাঁর ভিডিও বার্তায় বলেন, ‘আমি মোছা. হুসনা আক্তার। দালালে ভালা কথা কইয়া আমারে পাঠাইছে সৌদিতে। নিজরাল (নাজরান) এলাকায় আমি কাজ করি। আমি আইসা দেখি ভালা না।’

তিনি আরো বলেন, ওরা আমার উপর অত্যাচার করে। আমি বাক্কা দিন (১০/১২ দিন) হইছে আছি। এখন এরার অত্যাচার আমি সহ্য করতে পারি না দেইক্কা কইছি আমি যাইমু গা। এই কথা বলায় ওরা আরো বেশি অত্যাচার করে।

আমি এজেন্সির অফিসে ফোন দিছি। অফিসের এরা আমার সাথে খারাপ ব্যবহার করে। আমি আর পারতাছি না। তোমরা যেভাবে পারো আমারে বাঁচাও। এরা আমারে বাংলাদেশ পাঠাই তো চায় না। এরা আমারে ইতা করতাছে। আমারে ভালা কামের কথা কইয়া পাঠাইছে দালালে। আমারে ইতা করতাছে ওরা। আমি আর পারতাছি না সহ্য করতাম। তোমরা যেভাবে পারো আমারে নেও।’

হুসনার স্বামী আরব ওয়ার্ল্ড ডিস্টিভিউশন এজেন্সিতে গিয়ে এসব কথা জানায়। কিন্তু এজেন্সির সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা তাঁর কাছে এক লাখ টাকা দাবি করেন। তারা হুসনা সম্পর্কে কুরুচিপূর্ণ মন্তব্যও করেন। শফিউল্লা উপায় না পেয়ে স্ত্রীকে বাঁচানোর জন্য ওই ভিডিও তাঁর এক ভাইয়ের মাধ্যমে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোস্ট করেন।

পরিবার সূত্রে জানা যায়, শাহিন নামের একজন দালাল আরব ওয়ার্ল্ড ডিস্টিভিউশন নামে একটি এজেন্সির মাধ্যমে হুসনাকে গৃহকর্মীর কাজে সৌদি পাঠায়।

বিষেরবাঁশি.কম/ডেস্ক/মৌ দাস

Categories: অপরাধ ও দুর্নীতি,আন্তর্জাতিক

Leave A Reply

Your email address will not be published.