সোমবার ১ পৌষ, ১৪২৬ ১৬ ডিসেম্বর, ২০১৯ সোমবার

প্রতিবন্ধী কিশোরীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ

অনলাইন ডেস্ক: নওগাঁর ধামইরহাটে ইউপি চেয়ারম্যানের ভাই কর্তৃক প্রতিবন্ধি কিশোরীকে ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। ধর্ষন চেষ্টার শিকার প্রতিবন্ধী মেয়েটির প্রাথমিক ডাক্তারী পরীক্ষা ইতিমধ্যেই সম্পন্ন হয়েছে।

এ বিষয়ে মেয়েচির বড় ভাই মেহেদি হাসান বাদী হয়ে ধামইরহাট থানায় ধর্ষন চেষ্টার অভিযোগ এনে মামলা দায়ের করেছেন।

থানার অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, ১২ অক্টোবর বৈকাল ৪টায় উপজেলার উমার ইউনিয়নের অন্তর্গত উত্তর দূর্গাপুর গ্রামের জনৈক ব্যক্তির মানসিক ও বুদ্ধি প্রতিবন্ধি কিশোরী (১৪) কে ফুসলিয়ে উমার ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এর ভাই ও মেয়েটির প্রতিবেশি সিরাজুল ইসলাম (৩৬) তার বাড়ীতে কেউ না থাকায় সুযোগে ওই শিশুটিকে ঘরে নিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা করে। পরবর্তীতে শিশুটি মা মেয়ের খোঁজে সিরাজুল ইসলামের বাড়ীতে যায় এবং তার ঘর থেকে বিবস্ত্র অবস্থায় শিশুটিকে উদ্ধার করে। পরে স্থানীয় হাসপাতালে নেয়া হয়।

দুর্গাপুর গ্রামে মৃত মনছের মন্ডলের ছেলে সিরাজুল ইসলাম স্থানীয় উমার ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো.নুরুজ্জামান হোসেনের ছোট ভাই। এ ব্যাপারে ইউপি চেয়ারম্যান মো.নুরুজ্জামান হোসেন বলেন, মেয়েটি মানসিক প্রতিবন্ধি। শিশুটি সব সময় ছুটাছুটি করে এক জায়গায় স্থির থাকে না। তাছাড়া কাউকে দেখলে সে তার উপর ওঠতে চায়। অনেক সময় নিজের পরনের কাপড় নিজে খুলে ফেলে। ঘটনার সময় আমার ভাই বাড়ীর দোতলায় ঘুমিয়ে ছিল। এ ধরণের কোন ঘটনা আমার জানা মতে ঘটেনি।

ধামইরহাট স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক চিকিৎসক ডা.আরাফাত ইমাম বলেন, মেয়েটিকে প্রাথমিকভাবে পরীক্ষা করা হয়েছে। ধর্ষণ বা ধর্ষণের চেষ্টার কোন আলামত পাওয়া যায়নি। তারপরও আমরা তাকে জেলা সদরের হাসপাতালে পরীক্ষার জন্য রেফার্ড করেছি।

ধামইরহাট থানার অফিসার ইনচার্জ মো.জাকিরুল ইসলাম বলেন,এব্যাপারে শিশুটির ভাই বাদী হয়ে শিশু ধর্ষণের চেষ্টা আইনে থানায় একটি মামলা দায়ের করেছে, আসামীকেগ্রেফতারে পুলিশ কাজ করছে।

বিষেরবাঁশি.কম/ডেস্ক/মৌ দাস.

Categories: অপরাধ ও দুর্নীতি,সারাদেশ

Leave A Reply

Your email address will not be published.