শনিবার ৯ ভাদ্র, ১৪২৬ ২৪ আগস্ট, ২০১৯ শনিবার

নাসিক ২০১৯-২০ কর আরোপ ছাড়া ব্যাপক উন্নয়নের ঘোষনা

অনলাইন ডেস্ক: নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনে ২০১৯-২০ অর্থ বছরের রাজস্ব ও উন্নয়নসহ মোট ৮৭০ কোটি ৩৯ লক্ষ ৭৭ হাজার ৭৬ টাকার বাজেট ঘোষণা করেছেন মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী।

১৪ জুলাই রোববার বেলা সাড়ে ১১ টায় নগর ভবন প্রাঙ্গণে নতুন কর আরোপ ছাড়াই এ বাজেট ঘোষণা করা হয়। দ্বিতীয় মেয়াদে সিটি মেয়রের দায়িত্ব গ্রহণের পর এ নিয়ে তৃতীয় বারের মতো বাজেট ঘোষণা করেন তিনি।

এবারের বাজেটে নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের বিভিন্ন এলাকার উন্নয়নকেই প্রাধান্য দেওয়া হয়েছে। নগরীর বাবুরাইল খালকে আধুনিকায়ন, বিভিন্ন এলাকার রাস্তা ও ড্রেনের উন্নয়নকে অগ্রাধিকার দেওয়া হয়েছে। এছাড়া সিটি কর্পোরেশনের বেশ কয়েকটি ওয়ার্ডে স্বাস্থ্য সেবার উন্নতিকরণ, মাঠ ও জলাধার সংরক্ষণকেও গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে।

এছাড়া এবারের বাজেটে রাস্তা, ড্রেন, সেতু, কালভার্ট নির্মাণ ও পুনঃনির্মাণ, দারিদ্র্য বিমোচন, তথ্য প্রযুক্তি, শিক্ষা, স্বাস্থ্য, যানজট নিরসন, জলাবদ্ধতা দূরীকরণ, বর্জ্য ব্যবস্থাপনা আধুনিয়কায়ন, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও জরুরীত্রান, খেলাধুলার মানোন্নয়ন ও সড়ক বাতি স্থাপনে বিশেষ বরাদ্দ রাখা হয়েছে।

এদিকে, এডিবি, সিজিপি, এমজিএসপি, এডিপি প্রকল্প সহায়তার মাধ্যমে অবকাঠামো নির্মাণ ও পুনঃনির্মাণ, পরিবেশ সংরক্ষণ এবং সিটি করপোরেশনের আওতাধীন খালগুলো খননের মাধ্যমে জলাশয় সংরক্ষণে বরাদ্দ রাখা হয়েছে।

প্রস্তাবিত বাজেটে রাজস্ব ও উন্নয়ন খাতে মোট ৮০৬ কোটি ২৭ লক্ষ ৭৪ হাজার ২৭৫ টাকা আয় এবং মোট ৮০১ কোটি ৫ লক্ষ ৯ হাজার ৪৪৬ টাকা ব্যয় ধরা হয়েছে। বছর শেষে ঘোষিত বাজেটে ৫ কোটি ২২ লক্ষ ৬৪ হাজার ৮২৯ টাকা উদ্বৃত্ত থাকবে বলেছেন মেয়র।

বাজেট বাস্তাবায়নের লক্ষ্যে নগরবাসীর সহযোগিতা কামনা করেন এবং সময়মত হোল্ডিং কর পরিশোধ করে নগরীর উন্নয়ন কার্যক্রমে ভূমিকা রাখার জন্য অনুরোধ জানান তিনি।

বাজেট ঘোষণা শেষে জনগণের অংশগ্রহণ, স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা নিশ্চিতকরণের লক্ষ্যে ‘জনতার মুখোমুখি’ অনুষ্ঠানের আয়োজিত হয়। এ সময় মেয়র নগরবাসীর বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন এবং তাদের দাবি বাস্তাবায়নের আশ্বাস প্রদান করেন।

তিনি হকারদের বিষয়ে বলেছেন, ‘হকার মার্কেট করে দিয়েছি, তারপরও কেন বঙ্গবন্ধু রোডে হকার বসবে? বঙ্গবন্ধু রোডে এত কি মধু? কেন আইভীকে রোডে ফেলে মারতে হবে? হকাররা কি নারায়ণগঞ্জের সবার চেয়ে বড়| রাস্তায় হকার বসলে আবার যেতে হলে আমি যাবো| কিন্তু বঙ্গবন্ধু সড়কে হকার বসবে না মানে বসবে না।’ ‘হকার নেতা রহিম মুন্সির পাঁচ তলা বাড়ি আছে৷ তথাকথিত হকার নেতাদের বাড়ি আছে কিন্তু তারা হকার সেজে ফুটপাত দখল করে, চাঁদা খায়৷ অথচ এই হকার ইস্যুকে কেন্দ্র করেই সন্ত্রাসী শাহ্ নিজাম ও নিয়াজুল প্রকাশ্যে আমার উপর গুলি করেছে৷’

তিনি এসপির প্রতি অনুরোধ জানিয়ে বলেন, ‘ফুটপাত জনগণের চলাচলের জন্য কোন অবস্থাতেই যেন ফুটপাতে হকার বসতে না পারে৷ হকারদের জন্য মার্কেট করে দিয়েছি৷ তারপরেও কেন হকার ফুটপাতে বসবে? অবৈধ রিকশার জন্য পুলিশ প্রশাসনকে লক্ষ্য রাখার অনুরোধ জানাবো৷’

মেয়র আরো বলেন, ‘আমরা ইতিমধ্যে সুইমিং পুলের টেন্ডার দিয়েছি৷ রাসেল পার্কের ভেতরে মহিলাদের জন্য সুইমিং পুলের ব্যবস্থা করে হবে৷ বাচ্চাদের জন্য খেলার মাঠ করা হবে৷ আগামী ভবিষ্যতের জন্য আমাদের কী কী পরিকল্পনা রয়েছে তা নিয়ে আগামী ডিসেম্বরে একটা পরিকল্পনা করবো৷’

বাজেট ঘোষণার সময় মঞ্চে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বস্ত্র ও পাট মন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী (বীর প্রতীক)৷ আরো উপস্থিত ছিলেন, নারায়ণগঞ্জ-২ আসনের সাংসদ নজরুল ইসলাম বাবু, সাবেক সংরক্ষিত নারী সংসদ সদস্য হোসনে আরা বাবলী, সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহী এহতেশামুল হক, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) মনিরুল ইসলাম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) মোহাম্মদ নূরে আলম, জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম‌্যাজিস্ট্রেট মোহম্মদ জাহাঙ্গীর আলম, প্যানেল মেয়র আফরোজা হাসান বিভা প্রমুখ। এছাড়াও বাজেট অনুষ্ঠানের উপস্থিত ছিলেন, নাসিকের কাউন্সিলর, সাংবাদিক, সাংষ্কৃতিক ও সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দসহ বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষ।

প্রসঙ্গত, ২০১১ সালের ৩০ অক্টোবর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন হওয়ার পর ২০১২ সালে প্রথমবারের মতো বাজেট ঘোষণা করেছিলেন মেয়র আইভী। ওই বছরের ২৫ জুন প্রথম পূর্ণাঙ্গ বাজেট ঘোষণা করেন তিনি। ওই বাজেট ছিল ৩০৭ কোটি টাকার। এরপর ২০১৩-২০১৪ অর্থ বছরে নাসিকের বাজেট ছিল ৪শ’ ৩ কোটি ৯২ লাখ ৮৬ হাজার ৩৭৬ টাকা। ২০১৪-২০১৫ অর্থবছরে বাজেটের পরিমাণ ছিল ৪শ’ ২৪ কোটি ৪ লাখ ৬৯ হাজার ৫১২ টাকা। ২০১৫-২০১৬ অর্থ বছরে বাজেট ছিল ৪শ’ ৮৮ কোটি ৯০ লাখ ৮৪ হাজার ৬১৭ টাকার। ২০১৬-২০১৭ অর্থ বছরে বাজেটের পরিমাণ ছিল ৬শ’ ১ কোটি ২০ লাখ ২৯ হাজার ৭৯১ টাকার। ২০১৬ সালের ২২ ডিসেম্বর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে দ্বিতীয় মেয়াদে বিজয়ী হওয়ার পর নাসিকের ষষ্ঠ বাজেট ঘোষণা করেন মেয়র আইভী। ২০১৭ সালের ২৩ জুলাই ২০১৭-২০১৮ অর্থবছরে ৬৬৩ কোটি ৬৭ লাখ ৪৩ হাজার ৬২৫ টাকা ঘোষণা করেন তিনি। ২০১৮ সালে ৭১৫ কোটি ৫১ লাখ ২১ হাজার ৩৭৭ টাকা বাজেট ঘোষণা করা হয়৷

বিষেরবাঁশি.কম/ডেস্ক/মৌ দাস.

Categories: নারায়ণগঞ্জের খবর

Leave A Reply

Your email address will not be published.