রবিবার ৬ কার্তিক, ১৪২৫ ২১ অক্টোবর, ২০১৮ রবিবার

প্রধানমন্ত্রীর মানবিক উদ্যোগ: মুক্তি পেলেন ১৪২ জন কয়েদি

বিশেরবাঁশী ডেস্ক: সিলেট কেন্দ্রীয় কারাগারে আটক বিভিন্ন মামলার একশত ৪২ জন কয়েদি মুক্তি পেয়েছেন রবিবার বিকালে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ মানবিক উদ্যোগের প্রেক্ষিতে তাদেরকে আইনি প্রক্রিয়ায় মুক্তি দেন আদালত।  যারা ছোটখাটো তথা লঘু অপরাধ করে কারাগারে আছেন, তারা যদি দোষ স্বীকার করে ক্ষমা চান ও ভালো পথে চলার অঙ্গিকার করেন, তবে মানবিক দিক বিবেচনা করে তাদেরকে যথাযথ আইনি প্রক্রিয়ায় মুক্তি দেওয়ার বিষয়টি বিবেচনায় আনার উদ্যোগ নেন প্রধানমন্ত্রী। এ রকম একটি উদ্যোগের প্রেক্ষিতে আটককৃতরা মুক্তি পান চার দেয়ালের বেষ্টনী থেকে। প্রধানমন্ত্রীর এই উদ্যোগের প্রথম বাস্তবায়ন ঘটলো সিলেটে। সিলেট কেন্দ্রীয় কারাগারের সিনিয়র জেল সুপার আব্দুল জলিল সন্ধ্যায় ইত্তেফাককে বলেন, এই ১৪২ আসামি আদালতে আত্মপক্ষ সমর্থন করলে আদালত তাদেরকে জামিন প্রদান করেন।  সূত্র মতে, দেশে এই প্রথম কোন কারাগারের এতোজন আসামি একসঙ্গে জামিন লাভ করলেন।

সূত্রে জানা যায়, লঘু অপরাধে অভিযুক্ত বিভিন্ন মামলার ১৪২ জন আসামিকে সিলেট মুখ্য মহানগর হাকিম আদালত, সিলেট জেলা দায়রা জজ আদালতসহ বিভিন্ন আদালতে হাজির করা হয়। এসব আসামি চুরি, ছিনতাই, পতিতাবৃত্তি প্রভৃতি অপরাধে অভিযুক্ত ছিলেন। আদালতে এসব আসামি নিজেদের দোষ স্বীকার করে ভবিষ্যতে সঠিক পথে চলার অঙ্গিকার করেন। মানবিক দিক বিবেচনা করে সকল আসামির জামিন মঞ্জুর করেন আদালত। কিছু আসামির সাজার মেয়াদ পেরিয়ে যাওয়ায় তাদেরকেও মামলা থেকে অব্যাহতি প্রদান করেন। এসব কয়েদির মুক্তি পাওয়ার আগে সিলেট কারাগার পরিদর্শন করেন স্বরাষ্ট্রসচিব (সুরক্ষা ও সেবা) ফরিদ উদ্দিন আহমেদ চৌধুরী ও আইন সচিব আবু সালেহ শেখ মো. জহিরুল হক।

বিশেরবাঁশী ডেস্ক/সংবাদদাতা/ইলিয়াছ

Categories: সারাদেশ

Leave A Reply

Your email address will not be published.