বুধবার ৪ আশ্বিন, ১৪২৫ ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ বুধবার

নির্বাচনকে ঘিরে অরাজকতা সৃষ্টির কোন সুযোগ কাউকে দেওয়া হবে না

  • অর্ধ বার্ষিকী অপরাধ পর্যালোচনা সভায় আইজিপি

বিশেরবাঁশী ডেস্ক: পুলিশের আইজি ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী বলেছেন, নির্বাচনকে ঘিরে আইন-শৃখলা পরিস্থিতির অবনতি বা অরাজকতা সৃষ্টির কোন সুযোগ কাউকে দেওয়া হবে না। নির্বাচনকে সামনে রেখে অবৈধ অস্ত্র উদ্ধারকে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিতে হবে। বৈধ অস্ত্রের অবৈধ ব্যবহার রোধে ব্যবস্থা নিতে হবে। রবিবার দিনব্যাপী পুলিশ হেডকোয়ার্টার্সের সম্মেলন কক্ষে অর্ধ বার্ষিকী অপরাধ পর্যালোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন। আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষভাবে অনুষ্ঠানের লক্ষ্যে আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখার জন্য মাঠ পর্যায়ের পুলিশ কর্মকর্তাদের তিনি নির্দেশনা দেন।

সভায় আইজিপি ফেসবুকসহ অন্যান্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভুয়া তথ্য প্রচার করে অথবা গুজব ছড়িয়ে কোন ব্যক্তি বা গোষ্ঠী যাতে আইন-শৃঙ্খলার অবনতি ঘটাতে না পারে সে ব্যাপারে তৎপর ও সজাগ থাকার জন্য পুলিশ সুপারদের নির্দেশ দেন। ট্রাফিক শৃঙ্খলা ভঙ্গকারীদের কোন ছাড় দেওয়া হবে না-এমন হুশিয়ারি উচ্চারণ করেতিনি বলেন, কোন পুলিশ কর্মকর্তা বা সদস্য ট্রাফিক আইন ভঙ্গ করলে তাকেও ছাড় দেওয়া হবে না। তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।  সভায় পুলিশ সদর দফতরের ডিআইজি (ক্রাইম ম্যানেজমেন্ট) ব্যারিস্টার মাহবুবুর রহমান গত ৬ মাসের (জানুয়ারি-জুন) সার্বিক অপরাধ পরিস্থিতি বিশ্লেষণ করেন। সভায় অপহরণ, খুন, ডাকাতি, ছিনতাই, এসিড নিক্ষেপ, ধর্ষণ, নারী ও শিশু নির্যাতন, মাদকদ্রব্য, চোরাচালান দ্রব্য, অস্ত্র ও বিষ্ফোরক উদ্ধার, সড়ক দুর্ঘটনা, গাড়ি চুরি, রাজনৈতিক সহিংসতা, অপমৃত্যু, পুলিশ আক্রান্ত মামলাসহ দেশের সার্বিক আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি পর্যালোচনা করা হয়। পর্যালোচনায় দেখা যায়, এই ছয় মাসে সারাদেশে ১ লাখ ১৪ হাজার ১শ’ ২৪টি মামলা দায়ের হয়েছে। সারাদেশে মাদক দ্রব্য এবং চোরাচালান দ্রব্য উদ্ধারের পরিমাণ বৃদ্ধি পাওয়ায় এই ঘটনায় মামলা দায়েরের সংখ্যাও বৃদ্ধি পেয়েছে। ডাকাতি, দস্যুতা, দ্রæত বিচার, দাঙ্গা, নারী ও শিশু নির্যাতন, অপহরণ, সিঁধেল চুরি, চুরি, সড়ক দুর্ঘটনা মামলা সংখ্যা কমেছে। এ সময়ের মধ্যে গাড়ি চুরির মামলা হয়েছে ৭১৪টি। এর মধ্যে পুলিশ ৫৭৩টি গাড়ি উদ্ধার করেছে।

সভায় অতিরিক্ত আইজি (্প্রশাসন) মোখলেসুর রহমান, সিআইডির অতিরিক্ত আইজি শেখ হিমায়েত হোসেন, পুলিশ একাডেমীর অধ্যক্ষ মোহাম্মদ নাজিবুর রহমান, শিল্পাঞ্চল পুলিশের অতিরিক্ত আইজি আবদুস সালাম, এপিবিএনের অতিরিক্ত আইজি সিদ্দিকুর রহমান, রেলওয়ে পুলিশের অতিরিক্ত আইজি মোহাম্মদ আবুল কাশেম, ডিএমপি’র কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া, এসবি’র অতিরিক্ত আইজি মীর শহীদুল ইসলাম এবং পুলিশ সদর দফতরে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

অপরাধ ও দন্ড সমগ্র বইয়ের মোড়ক উন্মোচন
সভায় আইজিপি পুলিশ সদর দফতরের এআইজি ফারুক আহমেদ সংকলিত ‘অপরাধ ও দন্ড সমগ্র’ বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করেন। বইটিতে ১৯৮৭ সাল থেকে ২০১৮ সালের মার্চ পর্যন্ত দেশের সকল আইনের অপরাধ ও দন্ড স্থান পেয়েছে।

বিশেরবাঁশী ডেস্ক/সংবাদদাতা/ইলিয়াছ

Categories: আন্তর্জাতিক

Leave A Reply

Your email address will not be published.