শনিবার ৭ আশ্বিন, ১৪২৫ ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ শনিবার

বাজেটে ঘোষণা না থাকলেও এমপিও দেওয়া হবে: শিক্ষামন্ত্রী

বিশেরবাঁশী ডেস্ক: আন্দোলরত শিক্ষকদের ঘরে ফিরে যাওয়ার আহ্বান জানিয়ে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেছেন ‘বাজেটে বরাদ্দ উল্লেখ করা না থাকলেও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্ত করা হবে। বাজেটে যে বরাদ্দ আছে, সেখান থেকে এমপিওভুক্ত করা সম্ভব।’ সোমবার (১১ জুন) সচিবালয়ে প্রধানমন্ত্রীর শিক্ষা সহায়তা ট্রাস্টে এফসিসিআইয়ের দু’টি মাইক্রোবাসের চাবি হস্তান্তর অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী এ কথা বলেন। সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘এমপিও দাবিতে আন্দোলরত শিক্ষকদের রোজার মধ্যে কষ্ট না করে আন্দোলন করার দরকার নেই। আন্দোলন না করার অনুরোধ জানাচ্ছি।’

শিক্ষকদের আন্দোলন ও বাজেটে বরাদ্দ নিয়ে নিয়ে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘বাজেটে অনেক বিষয় উল্লেখ করে দেওয়া নেই। কোন টাকা কোন খাতে বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। এমপিওভুক্ত করার জন্য আগেই অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে কথা হয়েছে, প্রধানমন্ত্রীও বিষয়টি জানেন। সেই হিসেবে আমরা এখন থেকেই এমপিওভুক্তি করার প্রস্তুতি নিচ্ছি। বাজেটে আলাদা করে কোনও কিছু বলা না থাকলেও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্ত করতে কোনও সমস্যা হবে না। যে টাকা শিক্ষা মন্ত্রণালয়কে দেওয়া হয়েছে, তা থেকেও কিছুটা দেওয়া সম্ভব কিংবা থোক বরাদ্দ থেকেও অর্থ মন্ত্রণালয় দিতে পারে। এটার একটা ফয়সালা করে আমরা পরবর্তীতে দেব। দেব না, তা মোটেই ঠিক না।’

কিন্তু কিভাবে দেওয়া হবে, সেটা সময়ের ব্যাপার বলে উল্লেখ করেন শিক্ষামন্ত্রী। শিখ্ষঅমন্ত্রী বলেন, ‘বাজেটের সার্বিক গাইডলাইনকে ধরে এমপিও দেওয়া হবে। আমি আশা করি এটা নিয়ে আন্দোলন করার কোনও প্রয়োজন নেই। মিছামিছি রোজার মাসে কষ্ট না করার জন্য অনুরোধ জানাচ্ছি। আমরা ব্যবস্থা নেবো।’ অর্থমন্ত্রী নিজেও কথা দিয়েছেন উল্লেখ করে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘আমরা এমপিওভুক্তি করার জন্য উদ্যোগ নিয়েছি। এ ব্যাপারে আমরা আগে থেকেই কাজ শুরু করেছি। বাজেটে উল্লেখ করা জরুরি কোনও বিষয় না। অনেক বিষয়ই তো উল্লেখ নেই। এটা বাজেটে আছে কিনা, তা সম্পর্কিত না। আমরা এমপিওভুক্ত করবই। উপযুক্ত বরাদ্দ আছে, সার্বিক অর্থের মধ্যে সব টাকাই দেওয়া আছে। হয়ত উল্লেখ করে তিনি (অর্থমন্ত্রী) কিছু বলেননি।’

এর আগে রবিবার (১০ জুন) মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সচিব মো. সোহরাব হোসাইন জানিয়েছিলেন শিক্ষকদের আন্দোলন করার কোন যুক্তি নেই। বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্ত করা হবে। উল্লেখ্য, ২০১৮-১৯ অর্থবছরের বাজেটে কয়েকটি শর্ত দিয়ে নতুন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এমপিওভুক্ত করতে আলাদা বরাদ্দ রাখার কথা আগেই জানিয়েছিলেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। তবে, বাজেটে বরাদ্দ থাকলেও তা সুনির্দিষ্ট করা নেই। এ কারণে বেসরকারি শিক্ষকরা রবিবার (১০ জুন) আন্দোলনে নামেন।

জিপিএ ফাইভ বিক্রির অভিযোগে তদন্তের নির্দেশ

একই অনুষ্ঠানে জিপিএ ফাইভ বিক্রির অভিযোগ খতিয়ে দেখতে শিক্ষা মন্ত্রণালয়কে কমিটি গঠনের নির্দেশ দিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। এর আগে এই অভিযোগ তদন্ত করতে ঢকা শিক্ষা বোর্ড পরিদর্শন ও নিরীক্ষা অধিদফতরের পরিচালক আহাম্মেদ সাজ্জাদ রশীদকে প্রধান করে তিন সদস্যের একটি কমিটি গঠন করা হয়। শিক্ষামন্ত্রী সাভাদিকদের প্রশ্নের জবাবে বলেন, ‘অভিযোগ তদন্তে কমিটি গঠন করা হচ্ছে।’ উল্লেখ্যে, সম্প্রতি একটি বেসরকারি টেলিভিশনের প্রতিবেদনে এইচএসসি পরীক্ষায় টাকার বিনিময়ে জিপিএ ফাইভ পাইয়ে দেওয়ার অভিযোগ ওঠে। ওই অভিযোগ তদন্তে শিক্ষামন্ত্রী কমিটি গঠনের নির্দেশ দেন।

বিশেরবাঁশী ডেস্ক/সংবাদদতা/ইলিয়াছ

Categories: সারাদেশ

Leave A Reply

Your email address will not be published.