বৃহস্পতিবার ৫ আশ্বিন, ১৪২৫ ২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ বৃহস্পতিবার

আইভীর কাছে টিকলো না হকার নেতাদের তর্জন-গর্জন

বিষেরবাঁশী ডেস্ক: বঙ্গবন্ধু সড়কে হকার বসাকে কেন্দ্র করে ঘটে গেল সংঘাত-সংঘর্ষের কিংবা অনাকাঙ্খিত আরও অনেক ঘটনা। আহত হয়েছিলেন স্বয়ং মেয়র। তবে এতো কিছুর পরেও নাসিক মেয়র ডা. সেলিনা হায়াত আইভী ছিলেন তার সিন্ধান্তে অটল। কোন মতেই বঙ্গবন্ধু সড়ক ও ফুটপাত অবৈধ দখল হতে দিবেন না তিনি। হকার বসিয়ে লক্ষাধিক মানুষকে ভোগান্তি পোহাতে দেয়া যাবে না। এর জন্য তিনি হকারদের বঙ্গবন্ধু সড়ক ব্যাতিত অন্য সড়কগুলোতে বসার জন্য বলেন। এদিকে রমজানকে কেন্দ্র করে হকার নেতারা ঘোষণা দিয়েছিলেন। রমজান মাসে হকার বসবেই। প্রয়োজনে মশাল মিছিল, ভুখা মিছিলের মতো কঠোর কর্মসূচিতে যাবো এ ধরনের হুঙ্কার শোনা গেছে অনেক হকার নেতার মুখে।
>কিন্তু হকার নেতাদের কোন তর্জন গর্জনই টিকলো না মেয়র আইভীর কাছে। রমজান মাসে যাতে ফুটপাতে হকার বসতে না পারে সেজন্য কঠোর পদক্ষেপ নিয়েছে নাসিক। বঙ্গবন্ধু সড়কে হকার না বসার ব্যাপারে মেয়র আইভী জেলা পুলিশ সুপার বরাবর গত ১৪ই মে চিঠি পাঠান। চিঠি পেয়ে জেলা পুলিশ সুপার সদর থানা পুলিশকে ব্যবস্থা নিতে নির্দেশ দেন।
আজ রমজানের প্রথম দিন। কিন্তু বঙ্গবন্ধু সড়কের ফুটপাত খালি। কোথাও লক্ষ্য করা যায় নি কোন হকারকে। সাধারণ মানুষ নির্বিঘ্নে ফুটপাত দিয়ে চলাচল করতে পারছে। হকার না বসার কারনে শহরে যানজটও দেখা যাচ্ছে না। যান চলাচল স্বাভাবিক। রমজানের প্রথম দিন হিসেবে মানুষের ক্লান্তি একটু বেশিই। তবে সে ক্লান্তি অনেকাংশেই লাঘব করতে পেরেছেন মেয়র আইভী। ফুটপাত ফাঁকা থাকায় শান্তিতে চলাচল করতে পারছে নগরবাসী।
গত মাসের প্রথম দিকে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে আয়োজিত সমাবেশে রমজানে বঙ্গবন্ধু সড়কে হকার বসবে হকারদের দেয়া এমন হুশিয়ারিতে শঙ্কিত ছিল নগরবাসী। আবারো কোন সংঘর্ষের আশঙ্কা করেছেন অনেকেই। কেননা মেয়র তার সিদ্ধান্ত থেকে টলবার মতো মানুষ নন বলে মনে করেন নগরবাসী। সুতরাং হকাররা আবার বসতে চাইলে নতুন করে ঝামেলা হওয়াটাই ছিলো স্বাভাবিক।
এ প্রসঙ্গে সচেতন মহলের অনেকেই বলছেন, তবে আশঙ্কা যে কেটে গেছে ব্যাপারটা তেমনও নয়। আজ প্রথম রোজা বলে হয়তো হকার বসছে না, পরিস্থিতি বুঝে নেয়ার চেষ্টা করছে।
পরিস্থিতি সবশেষে যেদিকেই ঢলে পড়ুক না কেনো আপাত দৃষ্টিতে অনেকেই মনে করছেন, মেয়র আইভীর কাছে হকারনেতাদের তর্জন-গর্জন পুরোটাই নিষ্প্রাণ। কাল থেকেও হয়তো বসতে পারে হকার। আর বসলেও উচ্ছেদ করতে প্রস্তুত আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। আজও তাদের তৎপরতা লক্ষ্য করা গেছে পুরো শহরজুড়ে।

বিষেরবাঁশী ডেস্ক/সংবাদদাতা/ইলিয়াচ

Categories: নারায়ণগঞ্জের খবর,রাজনীতি

Leave A Reply

Your email address will not be published.