রবিবার ৪ অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ ১৮ নভেম্বর, ২০১৮ রবিবার

গোপালগঞ্জে নার্সকে ধর্ষণের অভিযোগ

বিশেরবাঁশী ডেস্ক: গোপালগঞ্জে চক্ষু হাসপাতালের এক নার্সকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে তার সাবেক স্বামীর বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার (১৭ মে) ভোররাতে সদর উপজেলার ঘোনাপাড়ায় ওই নার্সের ভাড়া বাসায় এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ অভিযুক্ত ধর্ষককে আটক করেছে। এ বিষয়ে সদর থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের হয়েছে। ধর্ষণের শিকার ওই নার্সের ডাক্তারি পরীক্ষা গোপালগঞ্জ ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে সম্পন্ন হয়েছে। জানা গেছে, গোপালগঞ্জ চক্ষু হাসপাতালের ওই নার্সের বাড়ি পিরোজপুরের স্বরূপকাঠিতে। ২০১১ সালে ঝালকাঠির সুব্রত দেবনাথের (৩৫) সঙ্গে তার বিয়ে হয়। বিয়ের দুই বছরের মাথায় নানা কারণে তাদের সংসার ভেঙে যায়।

এরপর থেকে সুব্রত নানাভাবে ওই নার্সকে উত্ত্যক্ত করতে থকে। এর আগেও একাধিকবার মেয়েটিকে গোপালগঞ্জে এসে সুব্রত উত্ত্যক্ত করলে থানায় মুচলেকা দিয়ে ছাড়া পায়। কিন্তু বুধবার (১৬ মে) রাতে সুব্রত তার এক বন্ধু ও বন্ধুর স্ত্রীকে নিয়ে নার্সের বাসায় আসে। বিষয়টি মীমাংসা করে দেওয়ার কথা বলে বন্ধু ও বন্ধুর স্ত্রী বাইরে থেকে সুব্রত ও তার সাবেক স্ত্রীকে ঘরে তালা দিয়ে আটকে রাখে।

আর এই সুযোগে সুব্রত তার হাত-পা বেঁধে ওই নার্সকে ধর্ষণ করে। পরে এলাকার লোকজন ওই নার্সের চিৎকার শুনে সুব্রতকে ধরে পুলিশে খবর দেয়। পরে পুলিশ গিয়ে সুব্রতকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে। গোপালগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. মনিরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন। তিনি জানান, এ ব্যাপারে থানায় মামলা হয়েছে।

বিশেরবাঁশী ডেস্ক/সংবাদদাতা/ইলিয়াছ

Categories: অপরাধ ও দুর্নীতি

Leave A Reply

Your email address will not be published.