রবিবার ৪ অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ ১৮ নভেম্বর, ২০১৮ রবিবার

দাফনের সময় নড়ে ওঠা শিশুটি মারা গেছে

বিষেরবাঁশী ডেস্ক: ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মৃত ঘোষণার পর দাফনের সময় নড়ে ওঠা সেই নবজাতক শিশুটি মারা গেছে। সোমবার দিবাগত রাত দেড়টায় রাজধানীর আগারগাঁওয়ের শিশু হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্র-আইসিইউতে মারা যায় শিশুটি।

হাসপাতালের পরিচালক অধ্যাপক ডা. মো. আবদুল আজিজ সাংবাদিকদের শিশুটির মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, নবজাতকটিকে বাঁচানো যায়নি। গতরাতে সে মারা গেছে। তার লাশ স্বজনদের কাছে হস্তান্তরের প্রক্রিয়া চলছে। নবজাতক শিশুটির মা শারমিন আক্তার এখন ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এর আগে গতকাল সোমবার সকালে নবজাতক শিশুটিকে মৃত ঘোষণা করে ডেথ সার্টিফিকেট দেয় ঢামেক কর্তৃপক্ষ। এরপর স্বজনরা তাকে দাফন করতে আজিমপুর কবরস্থানে নিয়ে যান। পরে গোসলখানায় নবজাতকের গায়ে পানি ঢালতেই সে মৃদু নড়ে ওঠে। চোখে ভুল দেখছেন ভেবে আবার পানি ঢালতেই দেখেন শ্বাস-প্রশ্বাস ওঠানামা করছে নবজাতকটির। সে সময় তিনি দৌড়ে এসে জানালেন নবজাতকটি বেঁচে আছেন।

এরপই শিশুটিকে আজিমপুরের স্থানীয় একটি ক্লিনিকে নেওয়া হয়। সেখান থেকে নবজাতককে নেওয়া হয় শেরেবাংলা নগর ঢাকা শিশু হাসপাতালে। বাচ্চাটি ভূমিষ্ঠ হওয়ার পর ডাক্তাররা বলেন, সে পেটে মারা গেছে। পরে তাকে একটি বক্সের ভেতরে রাখা হয়। তারপর আজিমপুরে নিয়ে যাওয়ার পর বাকি ঘটনা ঘটে।

তবে শেষ পর্যন্ত বাঁচানো গেল না নবজাতক শিশুটিকে।

বিষেরবাঁশী ডেস্ক/সংবাদদাতা/হৃদয়

Categories: স্বাস্থ্য

Leave A Reply

Your email address will not be published.