মঙ্গলবার ৮ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৫ ২২ মে, ২০১৮ মঙ্গলবার

সালমানের সঙ্গেই ফিরছেন প্রিয়াঙ্কা

বিষেরবাঁশী ডেস্ক: গুঞ্জনই সত্যি হলো। বলিউড সুপারস্টার সালমান খানের সঙ্গে ‘ভারত’ ছবিতে অভিনয় করতে যাচ্ছেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। তাই তার ভক্তদের আনন্দে মাতার উপলক্ষ এলো। এর মধ্য দিয়ে হলিউড জয়ের পর বলিউডে ফিরছেন তিনি।

পরিচালক আলি আব্বাস জাফর ‘ভারত’-এর শুটিং শুরুর খবর জানিয়েছেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। এরপরই তিনি ঘোষণা দেন প্রিয়াঙ্কার নাম। কিছুদিন ধরে অবশ্য হাওয়ায় ভাসছিল, সল্লুর নায়িকা হচ্ছেন ৩৫ বছর বয়সী এই অভিনেত্রী।
আন্তর্জাতিক খ্যাতির সুবাদেই ‘ভারত’-এর জন্য নির্মাতাদের প্রথম পছন্দ ছিলেন প্রিয়াঙ্কা।
যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে গিয়ে আলি আব্বাস জাফর ও প্রযোজক অতুল অগ্নিহোত্রী চিত্রনাট্যটি পড়ে শোনান তাকে। তারও ভালো লেগে গেছে। শেষ পর্যন্ত ব্যাটে-বলে মিলে যাওয়ায় চুক্তিবদ্ধও হয়েছেন। তাই ‘ভারত’ হতে যাচ্ছে বলিউডে তার বহুল প্রতীক্ষিত ফেরা।
‘ভারত’ পরিবারে যোগ দেওয়া প্রসঙ্গে প্রিয়াঙ্কা শেয়ার করেছেন, ‘সালমান ও আলির সঙ্গে এ ছবির শুটিং শুরু করতে মুখিয়ে আছি। এর আগে তাদের কাছ থেকে অনেক কিছু শিখেছি। প্রযোজক আলভিরা ও অতুলের (সালমানের বোন ও ভগ্নিপতি) সঙ্গেও কাজ করবো ভেবে ভালো লাগছে। আমার সব শুভাকাঙ্ক্ষীকে নিয়মিত পাশে থাকার জন্য ধন্যবাদ জানাই।’
পরিচালক আলি আব্বাস জাফর বলেছেন, “আমরা এর আগে ‘গুন্ডে’ ছবিতে একসঙ্গে কাজ করেছি। আন্তর্জাতিক অঙ্গনে প্রিয়াঙ্কা এখন বড় তারকা। এজন্য এ ছবির জন্য তিনি যুতসই। অসাধারণ অভিনয় ও দৃষ্টিনন্দন আন্তর্জাতিক আবেদনের মাধ্যমে ছবিটিকে বৈশ্বিক করে তুলতে তার ভূমিকা থাকবে। আমরা তার মধ্যে ‘ভারত’-এর প্রাণ খুঁজে পেয়েছি। এ ছবির প্রেমের গল্প অনেক পরিণত ও বেশ সূক্ষ্ম। চরিত্রটি যথাযথভাবে ফুটিয়ে তুলতে পারে এমন একজনকে প্রয়োজন ছিল আমাদের। প্রিয়াঙ্কার চরিত্রটিই এ ছবির প্রাণ। গল্পে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে সালমানের সহযাত্রী হবেন তিনি।”
ছবিটির বিষয়বস্তু ভারতের শেকড় ও গত ৭০ বছরে এর বিস্তৃত সংস্কৃতি। এতে সালমানকে পাঁচটি ভিন্ন অবয়বে দেখা যাবে। এর মধ্যে আছে ২০ বছর সময়ের শারীরিক গড়নও। ভারতের বিভিন্ন রাজ্য ছাড়াও এর শুটিং হবে লন্ডন, স্পেন, পোল্যান্ড, পর্তুগাল আর মাল্টায়।
সালমানের বিপরীতে সবশেষ ১০ বছর আগে অভিনয় করেছিলেন প্রিয়াঙ্কা। তারা প্রথম জুটি বাঁধেন ২০০৪ সালে ‘মুঝসে শাদি কারোগি’তে। এরপর ‘সালাম-এ-ইশক: অ্যা ট্রিবিউট টু লাভ’ (২০০৭) ও ‘গড টুসি গ্রেট হো’ (২০০৮) ছবিতে দেখা গেছে তাদের রসায়ন।
এবিসি নেটওয়ার্কের ‘কোয়ান্টিকো’ টিভি সিরিজের মাধ্যমে আন্তর্জাতিক খ্যাতি পান প্রিয়াঙ্কা। এরপর হলিউডের ‘বেওয়াচ’ ছবিতেও দেখা গেছে তাকে। হাতে আছে সেখানকার আরও কয়েকটি কাজ। বলিউডে তার সবশেষ ছবি ছিল প্রকাশ ঝা পরিচালিত ‘গঙ্গাজল’ (২০১৬)।

বিষেরবাঁশী ডেস্ক/সংবাদদাতা/মিতু

Categories: বিনোদন

Leave A Reply

Your email address will not be published.