শনিবার ৩ অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ ১৭ নভেম্বর, ২০১৮ শনিবার

হায়দরাবাদের নতুন অধিনায়ক সাকিব?

বিষেরবাঁশী ডেস্ক: বল টেম্পারিং ইস্যুতে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার (সিএ) সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় আছে সানরাইজার্স হায়দরাবাদ দল। একবার নিষেধাজ্ঞার ঘোষণা আসার পরই ওয়ার্নারকে দল থেকে বাদ দেবে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) এই দলটি। আর এরই মধ্য দিয়ে ফাঁকা হয়ে যাবে দলটির অধিনায়কত্বের পদ। ফলে, হায়দরাবাদ এরই মধ্যে নেমে গেছে নতুন অধিনায়ক খোঁজার মিশনে।

আর সেই দৌড়ে এই মৌসুমেই কলকাতা নাইট রাইডার্স ছেড়ে হায়দরাবাদে নাম লেখানো বাংলাদেশি সাকিব আল হাসানও। ভারতীয় গণমাধ্যমের অনুমান হল, এখানে সীমিত ওভারের ক্রিকেটে বাংলাদেশের এই অধিনায়ককে লড়তে হবে ভারতীয় ওপেনার শিখর ধাওয়ান ও নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসনের সাথে।

সাকিব এই মুহূর্তে টেস্ট আর ওয়ানডেতে র‌্যাঙ্কিংয়ের সেরা অলরাউন্ডার। ইনজুরির কারণে সদ্যই তিনি টি-টোয়েন্টির শীর্ষস্থান হারিয়েছেন। আছেন তিন নম্বরে। অধিনায়ক হওয়ার দৌড়ে তাকে এগিয়ে রাখছে আন্তর্জাতিক ও ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেটে তার অভিজ্ঞতা। আইপিএলে তিনি লম্বা সময় কাটিয়েছেন কেকেআরে।

দলটির হয়ে ৪৩টি ম্যাচ খেলে বাঁহাতি এই স্পিনার পেয়েছেন ৪৩টি উইকেট। আর রান তুলেছেন ৪৯৮টি। স্ট্রাইক রেটও মন্দ নয়-১৩০.৩৬! সাকিবের থেকে অবশ্য খুব একটা পিছিয়ে নেই কেন উইলিয়ামসন। আর যাই হোক, সব ফরম্যাটে উইলিয়ামস নিউজিল্যান্ড দলের অধিনায়ক। আর একই সাথে তিনি ক্রিকেট বিশ্বে সময়ের সেরা ব্যাটসম্যানদের একজন। আর যদি, হায়দরাবাদ ফ্র্যাঞ্চাইজি ভারতীয় অধিনায়কের দিকে হাঁটে তাহলে অবশ্যই তাদের প্রথম পছন্দ হবেন শিখর ধাওয়ান। যদিও, হায়দরাবাদের নতুন অধিনায়ক নির্বাচনটা রাজস্থান রয়্যালসের মত সহজ হবে না।

বল টেম্পারিং ইস্যুতে স্টিভেন স্মিথের বিরুদ্ধে আইসিসির সাজা ঘোষণার পরই তার বিকল্প হিসেবে আজিঙ্কা রাহানের নাম ঘোষণা করে দিয়েছে দু’বছর বাদে আইপিএলে ফেরার অপেক্ষায় থাকা রাজস্থান। ডেভিড ওয়ার্নারের বিপক্ষে এখনো আনুষ্ঠানিক কোনো শাস্তির ঘোষণা না আসায় এখানো চূড়ান্ত সিদ্ধান্তে আসতে পারছে না হায়দরাবাদ। এই ডেডিড ওয়ার্নারই ২০১৬ সালে দলকে প্রথমবারের মত এনে দিয়েছিলেন আইপিএলের শিরোপা। বল টেম্পারিং কেলেঙ্কারিতে এই সাফল্যও ধোপে টিকছে না। বরং, তার অধিনায়কত্ব যাচ্ছে বলেই আভাস দিয়ে রেখেছেন আইপিএলের চেয়ারম্যান রাজিব শুক্লা।

বার্তা সংস্থা প্রেস ট্রাস্ট ইন্ডিয়াকে (পিটিআই) দেওয়া এক সাক্ষাত্কারে হায়দারাবাদের মেন্টর ভিভিএস লক্ষণ বলেন, ‘কেপটাউন টেস্টে যা ঘটেছে, এটি সত্যি দুর্ভাগ্যজনক। সানরাইজার্সের পক্ষ থেকে এখনই কিছু বলা যাচ্ছে না। তবে আমরা ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার চূড়ান্ত সিদ্ধান্তের জন্য অপেক্ষা করব। তারপর ওয়ার্নারের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেব।’

বল টেম্পারিং ইস্যুতে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার (সিএ) সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় আছে সানরাইজার্স হায়দরাবাদ দল। একবার নিষেধাজ্ঞার ঘোষণা আসার পরই ওয়ার্নারকে দল থেকে বাদ দেবে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) এই দলটি। আর এরই মধ্য দিয়ে ফাঁকা হয়ে যাবে দলটির অধিনায়কত্বের পদ। ফলে, হায়দরাবাদ এরই মধ্যে নেমে গেছে নতুন অধিনায়ক খোঁজার মিশনে।

 

আর সেই দৌড়ে এই মৌসুমেই কলকাতা নাইট রাইডার্স ছেড়ে হায়দরাবাদে নাম লেখানো বাংলাদেশি সাকিব আল হাসানও। ভারতীয় গণমাধ্যমের অনুমান হল, এখানে সীমিত ওভারের ক্রিকেটে বাংলাদেশের এই অধিনায়ককে লড়তে হবে ভারতীয় ওপেনার শিখর ধাওয়ান ও নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসনের সাথে।

সাকিব এই মুহূর্তে টেস্ট আর ওয়ানডেতে র‌্যাঙ্কিংয়ের সেরা অলরাউন্ডার। ইনজুরির কারণে সদ্যই তিনি টি-টোয়েন্টির শীর্ষস্থান হারিয়েছেন। আছেন তিন নম্বরে। অধিনায়ক হওয়ার দৌড়ে তাকে এগিয়ে রাখছে আন্তর্জাতিক ও ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেটে তার অভিজ্ঞতা। আইপিএলে তিনি লম্বা সময় কাটিয়েছেন কেকেআরে।

দলটির হয়ে ৪৩টি ম্যাচ খেলে বাঁহাতি এই স্পিনার পেয়েছেন ৪৩টি উইকেট। আর রান তুলেছেন ৪৯৮টি। স্ট্রাইক রেটও মন্দ নয়-১৩০.৩৬! সাকিবের থেকে অবশ্য খুব একটা পিছিয়ে নেই কেন উইলিয়ামসন। আর যাই হোক, সব ফরম্যাটে উইলিয়ামস নিউজিল্যান্ড দলের অধিনায়ক। আর একই সাথে তিনি ক্রিকেট বিশ্বে সময়ের সেরা ব্যাটসম্যানদের একজন। আর যদি, হায়দরাবাদ ফ্র্যাঞ্চাইজি ভারতীয় অধিনায়কের দিকে হাঁটে তাহলে অবশ্যই তাদের প্রথম পছন্দ হবেন শিখর ধাওয়ান। যদিও, হায়দরাবাদের নতুন অধিনায়ক নির্বাচনটা রাজস্থান রয়্যালসের মত সহজ হবে না।

বল টেম্পারিং ইস্যুতে স্টিভেন স্মিথের বিরুদ্ধে আইসিসির সাজা ঘোষণার পরই তার বিকল্প হিসেবে আজিঙ্কা রাহানের নাম ঘোষণা করে দিয়েছে দু’বছর বাদে আইপিএলে ফেরার অপেক্ষায় থাকা রাজস্থান। ডেভিড ওয়ার্নারের বিপক্ষে এখনো আনুষ্ঠানিক কোনো শাস্তির ঘোষণা না আসায় এখানো চূড়ান্ত সিদ্ধান্তে আসতে পারছে না হায়দরাবাদ। এই ডেডিড ওয়ার্নারই ২০১৬ সালে দলকে প্রথমবারের মত এনে দিয়েছিলেন আইপিএলের শিরোপা। বল টেম্পারিং কেলেঙ্কারিতে এই সাফল্যও ধোপে টিকছে না। বরং, তার অধিনায়কত্ব যাচ্ছে বলেই আভাস দিয়ে রেখেছেন আইপিএলের চেয়ারম্যান রাজিব শুক্লা।

বার্তা সংস্থা প্রেস ট্রাস্ট ইন্ডিয়াকে (পিটিআই) দেওয়া এক সাক্ষাত্কারে হায়দারাবাদের মেন্টর ভিভিএস লক্ষণ বলেন, ‘কেপটাউন টেস্টে যা ঘটেছে, এটি সত্যি দুর্ভাগ্যজনক। সানরাইজার্সের পক্ষ থেকে এখনই কিছু বলা যাচ্ছে না। তবে আমরা ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার চূড়ান্ত সিদ্ধান্তের জন্য অপেক্ষা করব। তারপর ওয়ার্নারের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেব।’

বিষেরবাঁশী ডেস্ক/সংবাদদাতা/মিতু

Categories: খেলাধূলা

Leave A Reply

Your email address will not be published.