রবিবার ৭ কার্তিক, ১৪২৪ ২২ অক্টোবর, ২০১৭ রবিবার

কওমী মাদ্রাসাসহ সকল বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নিয়ন্ত্রণে আইন প্রণয়নে হাইকোর্টের নির্দেশ

  • অনলাইন ডেস্ক

দেশের বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের তত্ত্বাবধান, নিয়ন্ত্রণ এবং পরিচালনার জন্য এক বছরের মধ্যে সুনির্দিষ্টভাবে আইন প্রণয়নের নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।

কিণ্ডার গার্টেন, কওমী মাদ্রাসা থেকে শুরু করে সকল প্রকার বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এর আওতায় থাকবে।

এই বিষয়ে জারি করা রুলের চূড়ান্ত শুনানির পর বুধবার (০২ আগস্ট) বিচারপতি সালমা মাসুদ চৌধুরী ও বিচারপতি একেএম জহিরুল হকের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ রায় দেন। এ আইন প্রণয়ন বিষয়ে একটি প্রতিবেদন দিতেও সরকারকে নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।

শিক্ষা ব্যবস্থার জন্য বিশেষজ্ঞদের নিয়ে একটি কমিশন গঠন করে আইন (কোড) প্রণয়নের জন্য জনস্বার্থে ২০১২ সালে রিট আবেদন দায়ের করেছিলেন সুপ্রিম কোর্টের জ্যেষ্ঠ আইনজীবী এ বি এম নুরুল ইসলাম। আদালতে আবেদনের পক্ষে তিনি নিজেই শুনানি করেন। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন সহকারি অ্যাটর্নি জেনারেল অরবিন্দ কুমার রায়।

পরে অরবিন্দ কুমার রায় বলেন, শিক্ষা ব্যবস্থার জন্য বিশেষজ্ঞদের নিয়ে একটি কমিশন গঠন করে আইন (কোড) প্রণয়নের জন্য রিট করা হয়েছিল। এর জবাবে সরকার এ বিষয়ে কোড প্রণয়ন প্রক্রিয়াধীন রয়েছে বলে আদালতে প্রতিবেদন দিয়েছে। এরপর শুনানি শেষে আদালত সরকারের প্রক্রিয়াধীন কোডটি এক বছরের প্রণয়নের নির্দেশ দিয়েছেন।

রিট আবেদনকারী এ বি এম নুরুল ইসলাম বলেন, আমাদের দেশে প্রচলিত শিক্ষা কার্যক্রমে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের দিক নির্দেশনা অনুযায়ী চলছে। যা সংবিধানের ১৫২ অনুচ্ছেদের সাথে সাংঘর্ষিক। কারণ ১৯৯৫ সালের ১০ অক্টোবরে করা প্রচলিত শিক্ষা কার্যক্রম নীতি মালাগুলো রাষ্ট্রপতি বা সংসদ প্রণয়ন করেননি।

বিগত পাঁচ বছর আদালতে এ বিষয়ে শুনানি করেছে।

 

বি.বা/ডেস্ক/ক্যানি

Categories: আইন-আদালত

Leave A Reply

Your email address will not be published.